মৃতের সংখ্যা বাড়ছেই : বিশ্বব্যাপী হাহাকার
Published : Sunday, 22 March, 2020 at 12:00 AM, Update: 21.03.2020 11:25:57 PM
দিনকাল ডেস্ক
করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সিঙ্গাপুরে প্রথমবারের মতো দুই রোগী মারা গেছেন। প্রাণঘাতী ভাইরাসটিতে দেশটিতে এটিই প্রথম কোনো মৃত্যুর ঘটনা। স্ট্রেইটস টাইমসের খবরে এমন তথ্য জানা গেছে। সিঙ্গাপুরে ৭৫ বছর বয়সী এক নারী ও ৬৪ বছর বয়সী এক ইন্দোনেশীয় কোভিড-১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা যান। ওই নারী আগে থেকেই হৃদরোগ ও উচ্চ রক্তচাপে ভুগছিলেন। নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে গত ২৩ ফেব্রুয়ারি তিনি হাসপাতালে ভর্তি হন। পরে তার শরীরে কোভিড-১৯ ভাইরাসটি শনাক্ত হয়। এরপর তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। ২৬ দিন আইসিইউতে থাকার পর তার মৃত্যু হয়েছে। আর ওই ইন্দোনেশীয় গত ১৩ মার্চ থেকে আইসিইউতে ছিলেন। তার আগে থেকেই হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার ইতিহাস রয়েছে। ইন্দোনেশিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী গ্যান কিম ইয়ং বলেন, তাদের মৃত্যুতে আমরা গভীরভাবে শোকাহত। কঠিন সময়ে তাদের পরিবারের প্রতি আমার সহানুভূতি রয়েছে। তাদের পরিবারকে সব ধরনের সহায়তা দিতে আমরা প্রস্তুত। ওদিকে বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃতের সংখ্যা ১১ হাজার ছাড়িয়েছে বলে খবর দিয়েছে অনলাইন বিবিসি।
আন্তর্জাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ড ওমিটারের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এ পর্যন্ত ১৮৫টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা ভাইরাস। বাংলাদেশ সময় গতকাল শনিবার সকাল ১০টা পর্যন্ত ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১১ হাজার ৩৯৮ জনে। মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২ লাখ ৭৫ হাজার ৯৪৪ জন। আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৯১ হাজার ৯১২ জন। ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের হুবেই প্রদেশের রাজধানী উহান থেকে ছড়িয়ে পড়ে করোনা ভাইরাস। উৎপত্তিস্থল চীনে ৮০ হাজারেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হলেও সেখানে ভাইরাসটির প্রাদুর্ভাব কমে গেছে। তবে বিশ্বের অন্যান্য দেশে এই ভাইরাসের প্রকোপ বাড়ছে। আন্তর্জাতিক চীনের বাইরে করোনা ১৩ গুণ বৃদ্ধি পাওয়ার প্রেক্ষাপটে ১১ মার্চ পৃথিবীব্যাপী মহামারি ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। ওয়ার্ল্ড ওমিটারের ওয়েবসাইটে দেয়া তথ্য অনুযায়ী, চীনে এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ৮১ হাজার ৮ জন। এদের মধ্যে নতুন আক্রান্তের সংখ্যা ৪১ জন। মৃত্যু হয়েছে ৩ হাজার ২৫৫ জনের। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ৭১ হাজার ৭৪০ জন। চীনের পর সবচেয়ে বেশি করোনা আক্রান্ত হয়েছে ইতালিতে। সে দেশে এ পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৪৭ হাজার ২১ জন। চীনকে ছাড়িয়ে সেখানে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ৩২ জনে। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ৫ হাজার ১২৯ জন। ইরানে ১৯ হাজার ৬৪৪ জন মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। মারা গেছে ১ হাজার ৪৩৩ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ৬ হাজার ৭৪৫ জন। স্পেনে করোনায় আক্রান্ত মৃতের সংখ্যা ১ হাজার ৪১। দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২০ হাজার ৪১২ জন। এদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৫৮৮ জন।






প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

করোনা মোকাবিলায় দলমত নির্বিশেষে সকলকে এক হয়ে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছে বিএনপি। আপনি কি সমর্থন করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
25167 জন